রোজ শুক্রবার, ১৮ই সেপ্টেম্বর, ২০২০ খ্রিস্টাব্দ, ৩রা আশ্বিন, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ, বিকাল ৩:৫২

শিরোনামঃ
নভেল করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন কল্যাণ ব্রত দাস নির্ভেজাল ও কাঙ্ক্ষিত সেবা দানের মাধ্যমে জনগণের কাছাকাছি পৌঁছে যাওয়াই বিট পুলিশিং – বিএমপি কমিশনার। বাবুগঞ্জ উপজেলায় বাজার নিয়ন্ত্রণের লক্ষ্যে মোবাইল কোর্ট অভিযান পরিচালিত হয় সরকারি বরিশাল কলেজের নবাগত শিক্ষার্থীদের সেবায় রেডক্রিসেন্টের বরিশাল কলেজ শাখা সদা তৎপর তিন দিনেই প্রায় ২০০ কোটি টাকা হাতিয়ে নিয়েছে পেঁয়াজ সিন্ডিকেট বরিশালে করোনা দুর্গত পরিবারের সহায়তাকল্পে বিএমপি কর্তৃক গঠিত তহবিলের অর্থ বিএমপি কমিশনারের হাতে প্রদান বরিশালে ৮১ টি বেসরকারি স্বেচ্ছাসেবী সংস্থার মাঝে বাংলাদেশ জাতীয় সমাজকল্যাণ পরিষদের চেক বিতরণ অনুষ্ঠিত জিস্কা ফার্মাসিউটিক্যালস লিঃ এর বরিশাল আরএসএম কল্যাণ ব্রত দাস এর পিতৃবিয়োগ- বিভিন্ন সংগঠনের শোক প্রকাশ বরিশাল জেলায় ১ লক্ষ তালবীজ বপন কার্যক্রমের শুভ উদ্বোধন বরিশালে মোবাইল কোর্টের অভিযানে ৮ জন রোগীর দালাল আটক
বরখাস্ত হলেন ঈমাম লাঞ্চিতের ঘটনায় জড়িত গ্রাম পুলিশও

বরখাস্ত হলেন ঈমাম লাঞ্চিতের ঘটনায় জড়িত গ্রাম পুলিশও

সাইফুল ইসলামঃ “অন্যায় যে করে আর অন্যায় যে সহে,তব ঘৃনা যেন তারে তৃণ সম দহে।।”কবিগুরু রবিন্দ্রনাথ ঠাকুর এর নৈবদ্য কাব্যগ্রন্থে ন্যায়দন্ড কবিতার লাইন দুটো পড়তে পড়তে আমরা বড় হই। কিন্তু এর মর্মার্থ আমরা কখনো বুঝতে পারিনা বা বুঝতে চেষ্টা ও করিনা। যদি এর সঠিক মর্মার্থ সঠিক ভাবে অনুধাবন করতে পারতাম তবে সমাজ থেকে দূর হয়ে যেত সব সামাজিক অন্যায় ও অবিচার। সুষ্ঠু ও সুন্দর সমাজ বিনির্মাণে সমাজের প্রত্যেকের অবদান আছে।কেউ একজন অপরাধ করবে আর সব লোক সামনে বসে বসে দেখবে, কেউ যদি তা নিবারনের চেষ্টা না করে তবে সে সমাজে অপরাধ কখনো কমবে না। বরং আরো বাড়বে। পিজুস চন্দ্র দে হলেন সমাজের সেই ব্যক্তি যিনি অন্যায় কে প্রশ্রয় না দিয়ে আইনের সঠিক প্রয়োগে বিশ্বাস করেন।

মেহেন্দিগঞ্জ উপজেলার দড়িচর খাজুরিয়া দাখিল মাদ্রাসার অফিস সহকারি ও স্থানীয় মসজিদের ইমাম মোহাম্মদ শহিদুল ইসলাম ওরফে আলাউদ্দিন-কে শারীরিক নির্যাতন ও জুতার মালা পড়ানোর সময় গ্রাম পুলিশ নান্নু কবিরাজ সেখানে উপস্থিত ছিল এবং চেয়ারম্যান কে উক্ত কাজে সহযোগীতা করতে ধারনকৃত ভিডিও ফুটেজে দেখা যায়।

তাই আজ বুধ বার পিজুস চন্দ্র দে উপজেলা নির্বাহী অফিসার মেহেন্দিগঞ্জ স্বাক্ষরিত এক আদেশে স্থানীয় সরকার আইন ২০১৫ এর ৩১ নং বিধি অনুযায়ী মেহেন্দীগঞ্জ উপজেলার দড়িচর খাজুরিয়া ইউনিয়নের গ্রাম পুলিশ নান্নু কবিরাজকে সাময়িক বরখাস্তের আদেশ জারী করেন।যেহেতু তিনি মসজিদের ঈমামকে লাঞ্চিত করার মামলায় কারাভোগের কারনে কর্মস্থলে অনুপস্থিত রয়েছেন। সেহেতু, তিনি কারাভোগের দিন থেকে মামলা পরিসমাপ্তি না হওয়া পর্যন্ত সাময়িক বরখাস্ত থাকবেন। উল্লেখ্য একই মামলায় জড়িত প্রধান আসামী চেয়ারম্যান ও সাবেক একজন ইউপি সদস্য কারাভোগ করছেন।

এ প্রসঙ্গে ইউএনও পিজুস চন্দ্র দে বলেন, আইন তার নিজস্ব গতিতে চলবে অপরাধী সে যেই হোক ছাড় পাওয়ার সুযোগ নেই। অপরাধী তো অপরাধীই এর অন্য কোন পরিচয় নেই।