রোজ বৃহস্পতিবার, ২৪শে জুন, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ, ১০ই আষাঢ়, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ, বিকাল ৫:৩২

শিরোনামঃ
বরিশালে ট্রাকের চাকায় পিষ্ট হয়ে ২ মোটরসাইকেল আরোহীর মৃত্যু নির্বাচনে বিঘ্ন সৃষ্টিকারী, অনাকাঙ্ক্ষিত ব্যক্তিদের কঠোর হস্তে দমন করা হবে-পুলিশ কমিশনার বিএমপি। মানুষকে সেবা প্রদান করে যে ভালোবাসা পাওয়া যায়, তার চাইতে বড় আত্মতৃপ্তি আর কিছুই নেই__পুলিশ কমিশনার বিএমপি। বরিশালে ৪৬ পিস ইয়াবাসহ গ্রেফতার ০২ জন বাকেরগঞ্জে ধর্ষণের অভিযোগে চার শিশুকে, কারাগারে পাঠানোর দায়ে, ম্যাজিস্ট্রেটের বিচারিক ক্ষমতা প্রত্যাহারের নির্দেশ ১২০ পিস ইয়াবা সহ গ্রেফতার ০২ নাগরিক নিরাপত্তা ও সামাজিক সমস্যা নিরসনে বিএমপি সদা জাগ্রত- বিএমপি কমিশনার। বরিশালে ০৩ কেজি গাঁজা সহ গ্রেফতার ০১ পটুয়াখালীতে প্রেমিক যুগলের একই দড়িতে গলায় ফাঁস দিয়ে আত্মহত্যা বিএমপি’র অভিযানে ২০৫ পিস ইয়াবা ও ৫৮ গ্রাম গাঁজা সহ গ্রেফতার ০২
নৌযান শ্রমিকদের চলমান ধর্মঘট স্থগিত

নৌযান শ্রমিকদের চলমান ধর্মঘট স্থগিত

অনলাইন নিউজঃ ১১ দফা দাবিতে নৌযান শ্রমিকদের চলমান ধর্মঘট স্থগিত করা হয়েছে। বুধবার (২৪ জুলাই) শ্রম অধিদফতরের বৈঠকে নৌযান শ্রমিকরা ধর্মঘট স্থগিতের ঘোষণা দেন।
শ্রম ও কর্মসংস্থান মন্ত্রণালয়ের জনসংযোগ কর্মকর্তা আকতারুল ইসলাম সাংবাদিকদের এ তথ্য জানিয়েছেন। তিনি বলেন, ‘যাত্রীদের দুর্ভোগের কথা বিবেচনা করে প্রথমেই বাংলাদেশ নৌযান শ্রমিক ফেডারেশনের সভাপতি মো. শাহ আলম ভূঁইয়া এবং সাধারণ সম্পাদক চৌধুরী আশিকুল আলম যাত্রীবাহী নৌযানের ধর্মঘট স্থগিতের ঘোষণা দেন। পরে বাংলাদেশ জাহাজী শ্রমিক ফেডারেশনের সভাপতি মোহাম্মদ শুক্কুর মাহমুদ সব ধরনের নৌযান ধর্মঘট স্থগিত ঘোষণা করেন।’
বুধবার থেকে অনির্দিষ্টকালের জন্য দেশব্যাপী ধর্মঘট ডাক দেয় নৌযান শ্রমিকরা। বুধবার সকাল থেকে কোনো লঞ্চ সদরঘাট ছেড়ে যায়নি। দুর্ভোগে পড়েন যাত্রীরা।
এর পরিপ্রেক্ষিতে দুপুরে রাজধানীর শ্রম অধিদফতরের মহাপরিচালক মো. মিজানুর রহমানের সভাপতিত্বে বৈঠকে বসেন নৌযান শ্রমিকরা। তবে যাত্রীদের দুর্ভোগের কথা বিবেচনা করে মিটিং শেষ হওয়ার আগেই যাত্রীবাহী নৌযানের ধর্মঘট স্থগিত করা হয়।
নৌযান শ্রমিকদের ১১ দফা দাবির মধ্যে রয়েছে- প্রত্যেক শ্রমিককে মালিকের পক্ষ থেকে পরিচয়পত্র, নিয়োগপত্র ও সার্ভিস বুক দেয়া; সামাজিক নিরাপত্তার জন্য জীবন বীমা করা; নৌপথে সন্ত্রাসী, চাঁদাবাজি বন্ধ করা, সরকারি ব্যবস্থাপনায় প্রভিডেন্ট ফান্ড করা, খোরাকি ভাতা দেয়া, কর্মকালীন মৃত্যু হলে মৃত ব্যক্তির পরিবারকে ১০ লাখ টাকা দেয়া, ভারতগামী জাহাজের ল্যান্ডিং পাস দেয়া, সমুদ্র ভাতা, মাস্টার ড্রাইভারদের ইনচার্জ ভাতা, মাস্টার ড্রাইভার পরীক্ষার অনিয়ম দূর করা, মেরিন কোর্টের হয়রানি বন্ধ করা।
এসব দাবি আদায়ে এর আগেও কয়েক দফা ধর্মঘটে গিয়েছিল নৌযান শ্রমিকরা।